কড়ানজর
  • July 6, 2022
  • Last Update October 1, 2021 6:00 pm
  • গাজীপুর

শিক্ষার্থীদের মাঝে পর্দা টানিয়ে চলছে আফগান বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্লাস

শিক্ষার্থীদের মাঝে পর্দা টানিয়ে চলছে আফগান বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্লাস

কড়া নজর প্রতিবেদকঃ

আফগানিস্তানে বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়া নারীদের অবশ্যই “আবায়া” এবং “নিকাব” পরতে হবে বলে নির্দেশনা জারি করেছে তালেবান।

তালেবানরা আফগানিস্তানে আগের তুলনায় মধ্যবর্তী ও নমনীয় সরকার গঠনের প্রতিশ্রুতি দিলেও দেশটির নারীদের অবস্থার পরিবর্তন হওয়ার সম্ভাবনা দেখা যাচ্ছে না। 

আফগানিস্তানের স্থানীয় সংবাদ মাধ্যমে জানা যায়, সোমবার (৬ সেপ্টেম্বর) জানিয়েছে, দেশে বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্লাস শুরু হয়েছে কিন্তু “মাঝখানে পর্দা” দিয়ে।

ক্লাসের একপাশে ছাত্রীরা ও অন্যপাশে ছাত্ররা বসে ক্লাস করছে। তাদের মাঝে পর্দা দেওয়া।

আফগানিস্তানে বর্তমানে ক্ষমতায় থাকা তালেবানদের নির্দেশিত শিক্ষা নীতি এটি। পূর্বেও বিভিন্ন সাক্ষাৎকারে তালেবান জানিয়েছে, তাদের নারী শিক্ষায় কোনো সমস্যা নেই,  “কিন্তু নারীদের হিজাব পরে পড়াশোনা করতে হবে।”

শনিবার জারি করা একটি দীর্ঘ আদেশে, তালেবানরা বেসরকারি আফগান বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়া নারীদের আবায়া এবং নিকাব পরার নির্দেশ দেয়। তারা আরও জানায়, শ্রেণিকক্ষে অবশ্যই নারী-পুরুষ শিক্ষার্থীদের মাঝে পর্দা দিয়ে বিভক্ত করা থাকতে হবে।

তালেবানের নির্দেশ অনুযায়ী, ছাত্রীদের শুধুমাত্র নারী শিক্ষক দ্বারাই পড়ানো উচিত। কিন্তু যদি তা সম্ভব না হয় তাহলে “ভাল চরিত্রের বৃদ্ধ শিক্ষকের” কাছেও পড়তে পারবে। এছাড়া,  নারী শিক্ষার্থীদের পুরুষ শিক্ষার্থীদের চেয়ে ৫ মিনিট আগে পড়া শেষ করতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *