কড়ানজর
  • September 27, 2021
  • Last Update September 26, 2021 8:12 pm
  • গাজীপুর

টাঙ্গাইলে পৃথক স্থান থেকে ৪ জনের লাশ উদ্ধার

টাঙ্গাইলে পৃথক স্থান থেকে ৪ জনের লাশ উদ্ধার

কড়ানজর প্রতিবেদকঃ

টাঙ্গাইলে পৃথক স্থান থেকে শিশুসহ চার জনের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার (১০ আগস্ট) সদর, সখীপুর ও নাগরপুর উপজেলা থেকে এসব লাশ উদ্ধার করা হয়।  

তারা হলেন করটিয়া সরকারি সা’দত কলেজের অফিস সহায়ক আমিনুল ইসলাম (৩৪), নাগরপুর উপজেলার বাড়িগ্রামের কাদেরের ছেলে মিয়া চাঁন (৬৫), সখীপুর উপজেলার কালিদাস গ্রামের রতন কুমার সরকারের মেয়ে স্মৃতি রানি সরকার (৭) এবং অজ্ঞাত এক নারী (৪০)।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, সকালে সরকারি সা’দত কলেজের টিনশেড ঘর থেকে আমিনুল ইসলামের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। পরে লাশ ময়নাতদন্তের জন্য টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়। পুলিশের প্রাথমিক ধারণা তিনি আত্মহত্যা করেছেন।  

নাগরপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. জাহাঙ্গীর আলম জানান, ‘স্থানীয়দের মাধ্যমে খবর পেয়ে নোয়াই নদী থেকে ওই নারীর লাশ উদ্ধার করা হয়। প্রাথমিকভাবে ধারণা করছি, তিন-চার দিন আগে তার মৃত্যু হয়েছে। অজ্ঞাত ওই নারীর বয়স আনুমানিক ৪০-৪৫ বছর হবে। তার পরিচয় শনাক্ত ও ঘটনার তদন্ত চলছে।’

দুপুরে নাগরপুর উপজেলার মামুদনগর ইউনিয়নের বাড়িগ্রামে সেচ পাম্প চালাতে গিয়ে বিদ্যুতের তারে জড়িয়ে মিয়া চাঁনের মৃত্যু হয়। একই সময়ে উপজেলার নোয়াই নদী থেকে ভাসমান অবস্থায় অজ্ঞাত এক নারীর লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। 

অপরদিকে, সখীপুর উপজেলার কালিদাস গ্রামে খেলতে গিয়ে বিদ্যুতের ছেঁড়া তারে জড়িয়ে শিশু স্মৃতি রানির মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় শিশুর বাবা সখীপুর থানায় অপমৃত্যু মামলা করেন।

সখীপুর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) জয়নাল আবেদীন জানান, সকালে ঘুম থেকে উঠে স্মৃতি রানি ঘরের পেছনে খেলতে যায়। একপর্যায়ে ছিঁড়ে পড়া তারে হাত দিলে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়। তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিলে জরুরি বিভাগের চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *